Scores

ফিক্সিংয়ে ভারতের ২০১১ বিশ্বকাপ জয়ী ক্রিকেটার

ভারতের ২০১১ বিশ্বকাপ জয়ী দলের এক ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে ফিক্সিংয়ে জড়িত থাকার অভিযোগ উঠেছে। ভারতের জনপ্রিয় সংবাদ মাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এক প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৩ সালের আইপিএল ফিক্সিং কেলেঙ্কারির তদন্তের দায়িত্বে থাকা এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন ২০০৮-০৯ সিজনে একটি আন্তর্জাতিক ম্যাচ চলাকালীন সময়ে এক বুকির সাথে যোগাযোগ ছিল অভিযুক্ত ক্রিকেটারের।ফিক্সিংয়ে ভারতের বিশ্বকাপ জয়ী ক্রিকেটার

তদন্ত কর্মকর্তা বিবি মিশরা অভিযোগ তুললেও ওই ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে যৌক্তিক কোনো প্রমাণ দিতে পারেন না বলেই জানিয়েছেন। তিনি বলেন, “ভারতে অনুষ্ঠিত একটি আন্তর্জাতিক ম্যাচে এর উদাহরণ রয়েছে। তবে আমি যৌক্তিক ভাবে এর প্রমাণ দিতে পারবো না। এটি ঘটেছিল একটি আন্তর্জাতিক ম্যাচের প্রস্তুতি চলাকালীন সময়ে। ম্যাচের মাত্র এক দিন অথবা দুই দিন আগে। এটি ঘটেছিল ২০০৮-০৯ সালে।”

তবে খেলোয়াড়ের নাম প্রকাশ করেননি বিবি মিশরা। তিনি যোগ করেন, “এটি একটি ফোন কথোপকথন ছিল (খেলোয়াড় এবং বুকির মধ্যে) যেটি রেকর্ড করা হয়েছিল। টেলিফোনে দুটি কণ্ঠস্বর শোনা যায়। অভিযোগ অনুযায়ী, একটি হচ্ছে অভিযুক্ত ক্রিকেটারের এবং অপরটি হচ্ছে বুকির।”

 

Also Read - স্পিন পরামর্শক ছাড়াই বাংলাদেশের এশিয়া কাপের প্রস্তুতি


ওই সময় তদন্তের পর শুধু চার কর্মকর্তার ব্যাপারে প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়েছিল। তবে এই তদন্ত কর্মকর্তার দাবি, নয় খেলোয়াড়ের বিরুদ্ধেও অভিযোগ ছিল। “খেলোয়াড়দের বিরুদ্ধে যথেষ্ট যুক্তিপ্রদর্শন করা হয়েছিল। শুধু একজন না, নয় জনের বিরুদ্ধে।  আমরা উভয়কেই তদন্ত করেছি। শুধুমাত্র চার কর্মকর্তার সাথে সম্পর্কিত তদন্ত প্রকাশ করা হয়েছে।”

 

প্রতিবেদন অনুযায়ী, ভারত সুপ্রিম কোর্ট থেকে নিযুক্ত মিশরা, সেই সময়কালের ৯ খেলোয়াড়ের গতিবিধির তদন্ত করেছিলেন। বুকির দেয়া তথ্য অনুযায়ী ওই খেলোয়াড়ের মুখোমুখি হওয়ার পরিকল্পনা ছিল মিশরার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেটি আর সম্ভব হয়নি তার পক্ষে। কারণ বুকির থেকে যথেষ্ট তথ্য সংগ্রহ করতে পারেননি তিনি।

মিশরা আরো যোগ করেন, “বুকির দেয়া তথ্য অনুযায়ী আমি ওই খেলোয়াড়ের মুখোমুখি হতাম। কিন্তু বুকির থেকে যথেষ্ট প্রমাণ পাইনি যদিও আমি জানি তার কাছে প্রমাণ ছিল। আমি এই বিশেষ ঘটনাটি জানতাম যেটি ওই বুকি অন্যদের কাছে গোপন করেছিল। আমি তথ্য পেয়েছিলাম। ওই বুকি আমার কাছে সেটি স্বীকারও করেছিল। আমাকে সে তথ্য দিতে আগ্রহী ছিল কিন্তু শেষ মুহূর্তে এসে সে না দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।”

 

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

আইপিএলকে পছন্দ করেন না শ্রীশান্ত!