Scores

বাদ পড়ার ভয়ে হাফিজের অবসর!

সাময়িকভাবে দলে ফিরেছেন বটে, কিন্তু আবারও যেকোনো সময় বাদ পড়তে হতে পারে — এমন ভয় থেকেই টেস্ট ক্রিকেটকে বিদায় বলে দিলেন পাকিস্তানের অলরাউন্ডার মোহাম্মদ হাফিজ।

হাফিজের অবসর
আবারও বাদ পড়ার আগেই বিদায় বললেন হাফিজ।

‘দ্য প্রফেসর’ খ্যাত হাফিজ জানিয়েছেন, আবুধাবিতে চলতি পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ড তৃতীয় টেস্টই হবে পাকিস্তানের হয়ে সাদা পোশাকে তার শেষ ম্যাচ।

৩৮ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার গত মাসে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে টেস্ট ক্রিকেটে ফিরেছিলেন। প্রত্যাবর্তনটা বেশ ভালোও হয়েছিল। প্রথম টেস্টেই ব্যাট হাতে পৌঁছেছিলেন তিন অংকের ঘরে। কিন্তু ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে পারেননি তিনি। আর সেজন্যই তিনি মনে করছেন, নিজে থেকে সরে দাঁড়ানোর পক্ষে এটিই উপযুক্ত সময়।

Also Read - বিশ্বকাপের সেমিতে খেলার স্বপ্ন দেখছেন আফগানিস্তানের শাহজাদ


‘আমি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে আমার অবসর ঘোষণা করছি,’ বলেন হাফিজ। ‘আমি সত্যিই খুশি, এবং পাকিস্তানের হয়ে খেলতে পেরেছি বলে গর্বিত।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমার মনে হয় আমার ক্যারিয়ারে গত ১৫ বছরে আমি অনেক কঠোর পরিশ্রম করেছি। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডকে ধন্যবাদ। তারা আমার ক্যারিয়ারের প্রতিটি ক্ষেত্রে আমাকে সাহায্য করে গেছে। আমি ধন্যবাদ জানাতে চাই আমার সতীর্থদেরও, যাদের সাথে আমি এক ড্রেসিংরুম শেয়ার করেছি। আরও ধন্যবাদ টিম ম্যানেজমেন্টকে, যারা এই পুরো যাত্রায় আমাকে সঠিক পথ দেখিয়ে এসেছে।

‘আমি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি যাতে করে আমি আমার অবশিষ্ট শক্তি পাকিস্তানের হয়ে সাদা বলের ক্রিকেটে ব্যয় করতে পারি। আমি পাকিস্তানের হয়ে আগামী বিশ্বকাপে অংশ নিতে চাই। আমি এজন্য সম্মানিত বোধ করি যে আমি আমার দেশের হয়ে ৫৫টি টেস্ট ম্যাচে প্রতিনিধিত্ব করেছি, এর মধ্যে কিছু ম্যাচে আবার দলের অধিনায়কত্বও করেছি। আমি সন্তুষ্ট যে আমি আমার ক্ষমতার সর্বোচ্চ দিয়ে আমার সেরাটুকু নিংড়ে দিতে পেরেছি।’

চলতি টেস্টের আগের ৫৪ টেস্টে ৩৮.৩৫ গড়ে ৩,৬৪৪ রান করেছেন হাফিজ। দীর্ঘ পরিসরের ক্রিকেটে তার সর্বোচ্চ রান ২২৪। ২০১৫ সালে খুলনায় বাংলাদেশের বিপক্ষে এই কীর্তি গড়েন তিনি।।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

নিজেদের সিদ্ধান্তে অটল পাকিস্তান

টেস্ট থেকে অনির্দিষ্টকালের বিরতিতে ওয়াহাব রিয়াজ

জানুয়ারিতে পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে বাংলাদেশ!

হামলার হুমকিতে আবারো শঙ্কায় শ্রীলঙ্কার পাকিস্তান সফর!

না ফেরার দেশে পাকিস্তানি কিংবদন্তী আবদুল কাদির