Score

বাসার ডিস সংযোগ কেটে দিবেন শামসুর

কোটি ভক্তদের হৃদয় ভেঙ্গে দিয়ে গতকাল ক্রোয়েশিয়ার সাথে ৩-০ গোলে হেরে বিশ্বকাপ থেকে প্রায় ছিটকেই পড়েছে দুই বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা। প্রিয় দলের এমন লজ্জাজনক হারে স্বাভাবিক ভাবেই ভেঙ্গে পড়েছেন আর্জেন্টিনার সমর্থকগণ। কারন আগামী ২৬ তারিখ নিজেদের শেষ ম্যাচে শুধু জিতলেই হবেনা আলবিসেলেস্তেদের সাথে চেয়ে থাকতে হবে গ্রুপের অন্যদল গুলোর ফলাফলের দিকেও।

এদিকে বাংলাদেশ জাতীয় দলের টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান শামসুর রহমান শুভ হতাশায় ঘোষণা দিয়ে দিয়েছেন যে ২৬ তারিখের আর বিশ্বকাপের আর কোনো খেলাই দেখবেন না তিনি! এমনকি বাসার ডিস সংযোগও নাকি কেটে দিবেন। আজ সকালে এক ফেসবুক স্ট্যাটাসের মাধ্যমে নিজের হতাশা প্রকাশ করেন তিনি। তিনি লিখেন, “২৬ তারিখের পর আর বিশ্বকাপ দেখবো না। বাসার ডিশের লাইন কেটে দিবো। মনটা খুব খারাপ। কিন্তু এখনো আর্জেন্টিনা ও মেসিকে ভালোবাসি।”

 

Also Read - গুরুতর অপরাধে অভিযুক্ত হাথুরুসিংহে

বাসার ডিস সংযোগ কেটে দিবেন শামসুর
ফেসবুকে দেওয়া শামসুর রহমানের স্ট্যাটাস।

 

বিশ্বকাপ শুরুর আগে শামসুর জানিয়েছিলেন পারিবারিক ভাবেই তিনি আর্জেন্টিনা দলের সমর্থক। তার মা ব্যতিত পরিবারের বাকি সবাই আর্জেন্টিনাকে সমর্থন করে আসছে একেবারে শুরু থেকেই। তিনি বলেন, “আমার পরিবারের প্রায় সবাই আর্জেন্টিনার সমর্থক। মা শুধু ইতালির সমর্থন করে।”

আর্জেন্টিনা যদি শেষ পর্যন্ত প্রথম রাউন্ড থেকেই বিদায় নেয় তাহলে শীঘ্রই বাসার ছাদ থেকে প্রিয় দলের পতাকাও নামিয়ে ফেলতে হবে শামসুরকে। কারন বিশ্বকাপের আগেই জানিয়েছিলেন সমর্থন প্রকাশের জন্য বাসার ছাদে আর্জেন্টিনার পতাকা টাঙ্গান প্রতি বিশ্বকাপের সময়ই। তিনি যোগ করেন, “আমি সবসময় পতাকা লাগাই। উপরে বাংলাদেশের পতাকা, নিচে আর্জেন্টিনার। বাসার ছাদে টানাই। এবারও টানাব।”

উল্লেখ্য যে, প্রতিবারের মত এবারও বিশ্বকাপের অন্যতম ফেভারিট দল হিসেবে পা রাখা লিওনেল মেসির দল নিজেদের প্রথম ম্যাচে আইসল্যান্ডের বিপক্ষে ১-১ গোলে ড্র করে শুরুতেই ধাক্কা খায়। আগামী ২৬ তারিখ নিজেদের শেষ ম্যাচে তারা মুখোমুখি হবে আফ্রিকার ‘সুপার ঈগল’ খ্যাত নাইজেরিয়ার বিপক্ষে।


আরও পড়ুনঃ গুরুতর অপরাধে অভিযুক্ত হাথুরুসিংহে

Related Articles

বেলজিয়ামের নৈপুণ্যে ব্রাজিলের বিদায়

ফুটবল দলের জয়ে ইংলিশ ক্রিকেটারদের উৎযাপন

চওড়া হল তাসকিনের হাসি!

বিশ্বকাপ থেকে আর্জেন্টিনার বিদায়

ফিফা বিশ্বকাপ থেকে জার্মানির বিদায়