বিজয়ের ছন্দে ফেরার নেপথ্যে সেই ‘পাওয়ার হিটিং কোচ’

বড় খেলোয়াড় দলভুক্ত করার ক্ষেত্রে, কিংবা মাঠের পারফরম্যান্স দেখানোর ক্ষেত্রে চমক দেখাতে পারেনি সিলেট সানরাইজার্স। তবে সিলেট চমক দেখিয়েছিল কোচিং প্যানেল সাজানোতে।

বিজয়ের ছন্দে ফেরার নেপথ্যে সেই 'পাওয়ার হিটিং কোচ'
দল সাফল্য না পেলেও বিপিএলে ভালো ছন্দে ছিলেন বিজয়।

সিলেটের প্রধান কোচের দায়িত্বে ছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক তারকা মারভিন ডিলন। ব্যাটিং কোচ হিসেবে দলটি এনেছিল এক বিশেষজ্ঞকে। তিনি জুলিয়ান উড, যার খ্যাতি ইতিহাসের প্রথম পাওয়ার হিটিং কোচ হিসেবে।

Advertisment

বোলিং ইউনিটের দৈন্যতায় বিপিএলে সিলেট প্লে-অফে পা রাখতে পারেনি। তবে সিলেটের ব্যাটিং ইউনিটের পারফরম্যান্স ছিল সমীহ জাগানোর মত। তাতে মূল অবদান উডের। বিপিএলে সিলেটের যাত্রা থেমে গেলেও সেই উডকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন এনামুল হক বিজয়।

ব্যাট হাতে ছন্দে থাকা বিজয় জানান, উডের সাথে কাজ করে বেশ উন্নতি হয়েছে তার। তিনি বলেন, ‘উডের সাথে কাজ করার বেশ সময় পেয়েছি। তার সাথে ভালোমত প্র্যাকটিস করেছি। আমাকে অনেক সহায়তা করেছে। তাকে অবশ্যই ধন্যবাদ দিতে হয়। আমাকে নিয়ে এক মাস ধরে কাজ করেছে। তার কথা থেকে অনেক কিছু শিখতে পেরেছি এবং কাজে লাগাতে পেরেছি।’

বিজয়ের ছন্দে ফেরার নেপথ্যে সেই 'পাওয়ার হিটিং কোচ'
পাওয়ার হিটিং কোচ ধারণার প্রবর্তক জুলিয়ান উড।

উড এবারই প্রথম কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে পূর্ণ মেয়াদে দায়িত্ব পালন করলেন। ধীরে ধীরে স্পষ্ট হয়ে উঠছে, টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে কেন পাওয়ার হিটিং কোচের প্রয়োজন। তার দীক্ষায় নিজেকে মেলে ধরা বিজয় টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই ছিলেন ভালো ছন্দে।

বিজয় জানালেন, সেই ভালো শুরুই তাকে এনে দিয়েছিল আত্মবিশ্বাস। তিনি বলেন, ‘বিপিএল শুরুর আগে বিসিএলে মনের মত খেলতে পারিনি, যেরকম প্রতি বছর আমার যায়। এনসিএলটাও মনের মত হয়নি, সাধারণত যেরকম খেলি। তবে যতটুক হয়েছে ঠিক ছিল। বিসিএলের ওয়ানডে ম্যাচ খেলার পর ভালো কিছু করতে পারব এই আত্মবিশ্বাস ছিল। বড় টুর্নামেন্টে শুরুটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। ভালো শুরুর পর ছন্দ ফিরে পেয়েছি বা আত্মবিশ্বাসী ছিলাম।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।