ব্যথানাশক ইনজেকশন নিয়ে পাকিস্তান সিরিজে খেলেছেন স্টোকস

0
1144

ইংল্যান্ড দলে করোনা ছড়িয়ে পড়ায় পাকিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের আগে গোটা দলকে আইসোলেশনে যেতে হয়। এরপর বেন স্টোকসকে অধিনায়কের দায়িত্ব দিয়ে নতুন দল ঘোষণা করে ইসিবি।  তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করে ইংলিশরা। গোটা সিরিজ জুড়েই আঙুলের চোট নিয়ে খেলে গেছেন স্টোকস, করোনা-বিপর্যয়ের আগে যিনি ছিলেন না দলে।

ব্যথানশক ইনজেকশন নিয়ে পাকিস্তান সিরিজে খেলেছেন স্টোকস

Advertisment

প্রথমবারের মতো সংক্ষিপ্ত সংস্করণের অধিনায়কত্ব পেয়েই দারুণ সফল স্টোকস। দ্বিতীয় সারির দল নিয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে সিরিজ জিতেছেন ৩-০ ব্যবধানে। অথচ চোটের কারণে এই সিরিজে খেলার কথাই ছিল না তার।

গত এপ্রিলে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) রাজস্থান রয়্যালের হয়ে খেলার সময় বাম হাতের একটি আঙুল ভেঙে যায় স্টোকসের। এরপর দীর্ঘদিন মাঠের বাইরে ছিলেন। মাঝে ফিরে ভাইটালিটি ব্লাস্টে ৬টি ম্যাচ খেললেও পুরোপুরি সেরে ওঠেননি এখনও।

চলতি মাসে (জুলাই) পাকিস্তানের বিপক্ষে সিরিজের আগে অধিনায়ক ইয়ন মরগানসহ দলের সবাইকে আইলোসেশনে যেতে হলে দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য ডাক পড়ে স্টোকসের। জাতীয় দলকে নেতৃত্ব দেওয়া যেকোনো খেলোয়াড়ের জন্যই বহুল আকাঙ্ক্ষিত ব্যাপার। তাই ইঞ্জুরি নিয়েই মাঠে নামার সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

ব্রিটিশ গণমাধ্যম ডেইলি মিরর এ লেখা নিজের কলামে স্টোকস বলেন, ‘এটা আমার জন্য সম্পূর্ণ অপ্রত্যাশিত একটা সিরিজ ছিল। সত্যি বলতে, আমার বাম হাতে যে পরিমাণ ব্যথা ছিল, সাধারণ পরিস্থিতিতে আমি কখনই খেলতাম না। আইপিএলে আঙুল ভাঙার পর অস্ত্রোপচার সফল হয়েছিল। কিন্তু তখনও বেশ ব্যথা ছিল।’

‘মাঝেমধ্যে কেবল হাসিমুখে এসব সহ্য করতে হয়। এবং ইংল্যান্ডকে নেতৃত্ব দেওয়াটা তেমনই একটি কারণ। বলতে গেলে, আঘাত পাওয়া আঙ্গুলটি সেরে গেছে। কিন্তু প্রচন্ড ব্যথা ছিল, তাই গ্রীষ্মকালীন মৌসুমের বাকি সময় ব্যথা কমানোর জন্য আমাকে ইনজেকশন নিতে হয়েছে।’

এদিকে পাকিস্তানের বিপক্ষে চলমান টি-টোয়েন্টি সিরিজের আগে আইসোলেশন পর্ব শেষ করে ফিরে এসেছেন মরগানরা। তাই এই সিরিজে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে স্টোকসকে। পুরোপুরি চোট কাটিয়ে দ্য হান্ড্রেড ও আগস্টের প্রথম সপ্তাহ থেকে শুরু হতে যাওয়া ভারতের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে মাঠে নামতে চান এই অলরাউন্ডার।

তিনি জানান,’“আমি এখন খানিকটা বিশ্রাম পেয়েছি যা স্টেরয়েডকে কাজ করার সময় দেবে এবং দ্য হান্ড্রেড ও ভারতের বিপক্ষে ব্যথামুক্তভাবে খেলতে পারব। আপাতত দ্য হান্ড্রেডে কিছু ম্যাচ খেলার পরিকল্পনা করছি। আশা করছি, ভারতের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের সময় আঙুলে সমস্যা করবে না। সিরিজটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ এবং এখানে আমরা সবাই ভালো পারফর্ম করতে চাই।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে bdcrictime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।