Scores

মোসাদ্দেকের ক্ষ্যাপাটে ব্যাটিংয়েও জিততে পারল না মারাঠা

সতীর্থদের ব্যর্থতায় আবুধাবি টি-টেন লিগে বৃহস্পতিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) আবারো দলকে জেতাতে পারলেন না মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। তার নেতৃত্বাধীন মারাঠা অ্যারাবিয়ান্স এদিন ডেকান গ্ল্যাডিয়েটর্সের কাছে হেরেছে ২৯ রানে। যদিও ব্যাট হাতে উজ্জ্বল ছিলেন মোসাদ্দেক।

মোসাদ্দেকের ঝড়ো ব্যাটিং সত্ত্বেও মারাঠার সংগ্রহ ‘৮৭’

শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে তস হেরে প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমেছিল ডেকান। মোসাদ্দেকের সিদ্ধান্ত কতখানি সঠিক ছিল, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে পারে। কারণ প্রশান্ত গুপ্ত (১৬ বলে ৩৫), ইয়াসির কালিম (১৬ বলে ২৮), আনোয়ার আলীরা (১২ বলে ৩৯) বিধ্বংসী ব্যাটিং চালিয়েছেন মারাঠার বোলারদের উপর।

Also Read - পরিবারের সকলকে সেঞ্চুরি উৎসর্গ করলেন মিরাজ


এদিনও খরুচে ছিলেন বাংলাদেশি পেসার মুক্তার আলী। মাত্র ১ ওভার বল করেই তিনি খরচ করেছেন ১৭ রান। তবে নজর কেড়েছে আরেক বাংলাদেশি সোহাগ গাজীর বোলিং। তাকে ২ ওভার বলই তুলে দিয়েছিলেন মোসাদ্দেক। তাতে খরচ করেছেন মাত্র ১৫ রান। মুক্তার উইকেট না পেলেও গাজী একটি উইকেটও পেয়েছেন। সাজঘরে ফেরান ক্যামেরন ডেলপোর্তকে।

নির্ধারিত ১০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ডেকানের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১২০ রান। লক্ষ্য তাড়ায় নামা মারাঠাকে ডোবান দুই ওপেনারই। আব্দুল শাকুর ১৪ বলে ৯ ও ঈশান মালহোত্রা ১৮ বলে ২২ রান করে সাজঘরে ফিরলে চাপের মুখে ক্রিজে নামের মোসাদ্দেক। ব্যর্থ ছিলেন শোয়েব মালিকও (২ বলে ১ রান)। মোসাদ্দেককে তাই একাই লড়তে হয়েছে। ৩টি করে চার-ছক্কায় মাত্র ২১ বলে ৪৪ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি। নির্ধারিত ১০ ওভারে মারাঠা জড়ো করে ৯১ রান, তাই ডেকান জেতে ২৯ রানের ব্যবধানে।

অর্ধশতক পাননি অল্পের জন্য, দলকে ম্যাচও জেতাতে পারেননি। তবে মোসাদ্দেক পেয়েছেন চেষ্টার স্বীকৃতি। ম্যাচের পাওয়ার হিটার খেতাব জিতেছেন তিনি।

Related Articles

আইসিসির নজরদারিতে ‘৩’ বাংলাদেশি : ক্ষিপ্ত সোহাগ

টি-টেনে ফিক্সিং বিতর্ক, বহিস্কার মোসাদ্দেকদের সতীর্থ

ওয়াসিমের তাণ্ডবে ম্লান নাসির ঝড়, মনিরের এক ওভারে ‘৩৫’ রান

ভক্তদের জন্য আরও দুই-এক বছর খেলতে চান আফ্রিদি

মোসাদ্দেকদের বিপক্ষে আফিফ ঝড়, জিতল বাংলা টাইগার্স