রাজ্জাকের স্পিন বিষে নীল উত্তরাঞ্চল

0
1141

বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) ষষ্ঠ রাউন্ডের প্রথম ইনিংসে উত্তরাঞ্চলের ব্যাটসম্যানদের বেশ ভুগিয়েছেন আব্দুর রাজ্জাক। তার স্পিন বিষে শতক হাতছাড়া করেছেন আরিফুল হক। ডানহাতি এ ব্যাটসম্যানের ২ রানের আক্ষেপের দিন দল অলআউট হয়েছে ২৯৩ রানে। রাজ্জাক একাই শিকার করেছেন ৭ উইকেট।

উইকেট শিকারের পর রাজ্জাকের উদযাপন।
উইকেট শিকারের পর রাজ্জাকের উদযাপন।

উত্তরাঞ্চলের প্রথম ইনিংসে করা ২৯৩ রানের জবাবে স্কোরবোর্ডে ১ উইকেটে ২১ রান যোগ করে প্রথম দিনের খেলা শেষ করেছে দক্ষিণাঞ্চল। ১ রান করে সানজামুলের বলে নাফীস আউট হলেও ৭ রানে এনামুল হক ও ব্যক্তিগত ৮ রানে অপরাজিত থেকে দিনের খেলা শেষ করেন ফজলে মাহমুদ।

দক্ষিণাঞ্চলের বিপক্ষে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় উত্তরাঞ্চল। মিজানুর রহমান ও জুনায়েদ সিদ্দিক দলকে এনে দেন শুভ সূচনা। দুজনে মিলে উদ্বোধনী জুটিতে যোগ করেন ৬০ রান।

Advertisment

এরপর আক্রমণে এসে উত্তরাঞ্চলের ছন্দপতন ঘটান রাজ্জাক। ব্যক্তিগত ২৯ রানে মিজানুরকে আউট করে দলকে ব্রেকথ্রু এনে দেন তিনি। এরপর ৪৪ রান করা জুনায়েদকে মেহেদি হাসান সাজঘরে ফেরান। দুই ওপেনারের ফিরে যাওয়ার পর রাজ্জাক- শফিউলদের বোলিং তোপে দলীয় ১৩৬ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে বসে দলটি।

দল যখন চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ে তখন হাল ধরেন আরিফুল হক ও জিয়াউর রহমান। দুজনে মিলে বিপর্যয় কাটিয়ে দলকে সম্মানজনক পুঁজি এনে দিতে লড়ে যান। তাদের ১৩৫ রানের মূল্যবান সপ্তম উইকেট জুটিতে সম্মানজনক পুঁজির সংগ্রহও পায় দলটি।

শতরানের জুটিতে উভয় ব্যাটসম্যান পূর্ণ করেন অর্ধশতক। ব্যক্তিগত মাইলফলক স্পর্শের পর যখন আরও ভয়ঙ্কর রূপ ধারণ করার পথে এ জুটি, তখন উত্তরাঞ্চলের ইনিংসে ছন্দপতন ঘটান নাহিদুল ইসলাম। ৬৯ রান করা জিয়াউর রহমানকে মেহেদির হাতে ক্যাচ বানিয়ে ভাঙ্গন ধরান জুটির।

এক প্রান্ত আগলে রেখে আরিফুল শতকের পথে এগিয়ে গেলেও শেষ পর্যন্ত কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যর দেখা পাননি তিনি। ৯৮ রান নিয়ে ব্যাট করতে থাকা ডানহাতি এ ব্যাটসম্যানকে লেগ-বিফোরের ফাঁদে ফেললে ভেস্তে যায় তার শতকের স্বপ্ন। ৬ চার ও ৩ ছক্কায় সাজানো তার ইনিংসটি থামলে ২৯৩ রানে নবম উইকেটের পতন ঘটে দলটির। তার ফিরে যাওয়ার এক বল পর একই রানে রাজ্জাক তোপে অল-আউট হয় উত্তরাঞ্চল।

উত্তরাঞ্চলের বিপক্ষে সাত উইকেট শিকার করলেন আব্দুর রাজ্জাক।
উত্তরাঞ্চলের বিপক্ষে সাত উইকেট শিকার করলেন আব্দুর রাজ্জাক।

দক্ষিণাঞ্চলের বোলারদের মদ্যে ২৯.৪ ওভার থেকে ৬৯ রান খরচায় রাজ্জাক সর্বোচ্চ ৭টি উইকেট লাভ করেন। বাকি বোলারদের মধ্যে শফিউল ইসলাম, মেহেদি হাসান ও নাহিদুল ইসলাম প্রত্যাকেই একটি করে উইকেট পেয়েছেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ড-

উত্তরাঞ্চল: প্রথম ইনিংসে ২৯৩।
আরিফুল ৯৮, জিয়াউর ৬৯, জুনায়েদ ৪৪; রাজ্জাক ২৯.৪-১.-৬৯-৭।

দক্ষিণাঞ্চল: প্রথম ইনিংসে ১ উইকেটে ২১ রান।
এনামুল ৭*, নাফীস ১, ফজলে ৮*; সানজামুল ৩-০-৭-১।


আরও পড়ুনঃ ২০১৯ সালে বাংলাদেশের যত খেলা