রেকর্ড গড়ে হাসপাতালে ভর্তি বাবার ইচ্ছাপূরণ নিদা’র

অনন্য এক রেকর্ড গড়েছেন পাকিস্তানের প্রমীলা অলরাউন্ডার নিদা দার। প্রমীলা ক্রিকেটে তো বটেই, পুরুষ ও নারী দুই ক্রিকেট মিলিয়েই পাকিস্তানের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ১০০ উইকেট শিকার করেছেন তিনি।

রেকর্ড গড়ে হাসপাতালে ভর্তি বাবার ইচ্ছাপূরণ নিদা'র

Advertisment

অ্যান্টিগায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে এই কীর্তি গড়েন নিদা। নিদার আগে মাত্র ৪ জন প্রমীলা ক্রিকেটার আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ১০০ উইকেট শিকার করেছেন। তারা হলেন- আনিসা মোহাম্মদ (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), এলিস পেরি (অস্ট্রেলিয়া), শাবনিম ইসমাইল (দক্ষিণ আফ্রিকা) ও আনিয়া শ্রাবসোল (ইংল্যান্ড)।

তবে পাকিস্তানের হয়ে কোনো নারী দূরে থাক, পুরুষেরও নেই ১০০ আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি উইকেট শিকারের কীর্তি। নিদার পেছনে আছেন শহীদ আফ্রিদি, তার উইকেট সংখ্যা ৯৮। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বলায় এই রেকর্ড ভাঙার সুযোগ নেই আফ্রিদির।

বিশ্ব ক্রিকেটে লাসিথ মালিঙ্গা একমাত্র পুরুষ ক্রিকেটার, এই ফরম্যাটে যার আন্তর্জাতিক উইকেট একশরও বেশি। এশিয়ার মধ্যে মালিঙ্গার পরই আছেন নিদা।

অসাধারণ এই কীর্তি গড়ার সময় নিদার পরিবার অবশ্য লড়াই করছে হাসপাতালে। নিতার গর্বিত বাবা আক্রান্ত হয়েছিলেন করোনায়। ভাইরাস দূর হলেও এখন জেঁকে বসেছে অন্যান্য রোগ। বিষয়টি জানতে পেরে নিদা দেশে ফিরে যেতে চেয়েছিলেন। তবে পরিবারের সমর্থনেই দলের সাথে থেকে যান। এবার গড়লেন রেকর্ডও।

মুঠোফোনে নিদার ভাই হাম্মাদ হাসান জানান, তাদের বাবাও চেয়েছিলেন, এই রেকর্ড হোক মেয়ের। তিনি বলেন, ‘আমাদের বাবা হাসপাতালের শয্যায়। করোনা থেকে সেরে উঠলেও এখন অন্যান্য জটিলতা আছে। আমার বোন খেলা ছেড়ে বাড়ি ফিরতে চেয়েছিল। আমরা তাকে খেলা চালিয়ে যেতে বলি।’

নিদার ভাই আরও বলেন, ‘সে বাবার অনেক আদরের। বাবাও চাচ্ছিলেন সে যেন ১০০ উইকেট পায়।’

বাবার ইচ্ছা পূরণ হয়েছে বটে। তবে পরিবার থেকে দূর হয়নি বিপদ। নিদা রেকর্ড গড়ার আগের দিন মারা যান নিদার চাচা। বাবা এখনও চিকিৎসা নিচ্ছেন হাসপাতালে। পরিবারের সদস্যরা তাই স্বস্তিতে বসে নিদার খেলা দেখতে পারেননি।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।