Scores

শেখ জামালকে চতুর্থ জয় এনে দিলেন তাইজুল-খালেদ

চলমান ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগের ৩৮তম ম্যাচে খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতিকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। আসরে এটি দলটির চতুর্থ জয়।

শেখ জামালকে চতুর্থ জয় এনে দিলেন তাইজুল-খালেদ -

দলকে জয় এনে দিতে এদিন বল হাতে কার্যকরী ভূমিকা রেখেছেন জাতীয় দলের দুই ক্রিকেটার তাইজুল ইসলাম ও খালেদ আহমেদ।

Also Read - ভিডিও বার্তায় সাকিবদের শুভকামনা জানালো ওয়ার্নারের মেয়েরা


শুক্রবার (২৯ মার্চ) ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে খেলাঘর। মইনুল ইসলাম ও অমিত মজুমদারের ব্যাটে ভর করে তবুও লড়াকু পুঁজির দেখা পায় দলটি। নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৯ উইকেট হারিয়ে খেলাঘরের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৮৩ রান।

 

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৫ রান আসে মইনুলের ব্যাট থেকে। এছাড়া ৪০ রান করেন অমিত। অন্যান্যদের মধ্যে রাফসান আল মাহমুদ ২৬ ও মাসুম খান ১৮ রান করেন।

তাইজুল ইসলাম ও খালেদ আহমেদ উভয়েই তিনটি করে উইকেট শিকার করেন।

জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে শেখ জামালের দুই ওপেনার ইমতিয়াজ হোসেন ও ফারদিন হাসান উদ্বোধনী জুটিতে এনে দেন ৫০ রান। ফারদিন ২৫ রান করে বিদায় নেওয়ার পর ওয়ান ডাউনে নামা তানবীর হায়দারও সমান অঙ্কের রান করেন। ৪৭ রান করা ইমতিয়াজ তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে সাজঘরে ফেরার পর ১৫০ রানের মধ্যে আরও দুটি উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় ৫ উইকেট হারানো শেখ জামাল।

 

তবে শেষদিকে ধীরে-সুস্থে খেলে দলকে জয় এনে দেন জিয়াউর রহমান ও তাইজুল ইসলাম।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৭ রান করেন ইমতিয়াজ। এছাড়া ফারদিন হাসান ও তানবীর হায়দার ২৫, নুরুল হাসান সহান ২২ এবং নাসির হোসেন ও জিয়াউর রহমান* ২০ রান করেন। ১৫ রানে অপরাজিত থাকেন তাইজুল। শেখ জামাল জয় পায় ৫ উইকেট ও ৪৮ বল হাতে রেখেই।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

খেলাঘর ১৮৩/৯ (৫০ ওভার)
মইনুল ৫৫, অমিত ৪০, রাফসান ২৬, মাসুম ১৮
তাইজুল ৩৯/৩, খালেদ ৪৩/৩, নাসির ২১/১

শেখ জামাল ১৮৫/৫ (৪২ ওভার)
ইমতিয়াজ ৪৭, ফারদিন ২৫, তানবীর ২৫, সোহান ২২
তানভীর ৩১/২, রবিউল ৪২/২

ফল: শেখ জামাল ৫ উইকেটে জয়ী।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন


Related Articles

অদ্ভুতভাবে চোট বাঁধিয়েছেন খালেদ আহমেদ

নিউজিল্যান্ডে খালেদ-রাহী-এবাদতের কথা বুঝতেন না টাইগাররা!

‘জুনিয়র’ সতীর্থদের মুস্তাফিজের ‘দাওয়াই’

নিউজিল্যান্ডের পথে আরো চার ক্রিকেটার

খালেদের বোলিং দেখে মুগ্ধ মরিসন