সবাই মুশফিকের কথা কেনো বলছে? প্রশ্ন রাজ্জাকের

0
1807

নির্দিষ্ট কোনো ফরম্যাট থেকে নিজ থেকেই সরে দাঁড়াবেন মুশফিক, এমনটাই দুদিন আগে বলেছিলেন বিসিবি প্রধান। অবশ্য আজ নির্বাচক প্যানেলের সদস্য আব্দুজ রাজ্জাকের প্রশ্ন, সবাই কেনো মুশফিকের নাম উচ্চারণ করছেন?

জাতীয় দলের এক সময়ের সতীর্থ এখন মুশফিকের ভবিষ্যৎ নির্ধারণকারী।

৩৫-এ পা দিলেন মুশফিক। এই বয়সে তিন ফরম্যাটে দিব্যি খেলে বেড়ানো শুধু মুশফিক নন, বিশ্বের যেকোনো ক্রিকেটারের জন্যই কঠিন ব্যাপার। এমনকি সময়টাও খারাপ যাচ্ছে তাঁর। ব্যাট হাতে ছন্দে নেই আগের মতো। তবে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাট থেকে মুশফিক যেন সরে যান সেটা অধিকাংশ ভক্তরাই চান।

Advertisment

তামিম নিজ থেকে এই ফরম্যাট থেকে নিজেকে দূরে রাখছেন। মাহমুদউল্লাহ তো টেস্ট থেকে অবসরে চলে গেছেন। যে কারণে বিসিবি প্রধান পাপন বলেছেন, তিনি চান না কোনো সিনিয়র ক্রিকেটার মন খারাপ করে খেলুক। তাঁর এই বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণ করেছেন রাজ্জাক।

“পাপন ভাই যেটা বলেছে এটা কিন্তু অযৌক্তিক না। পাপন ভাই কারো নাম ধরে বলনি। এটা কিন্তু খুবই স্বাভাবিক ব্যাপার।”

বিসিবি প্রধান পাপনের ধারণা তামিম, রিয়াদের মতো মুশফিকও নিশ্চয়ই কোনো ফরম্যাট থেকে নিজ থেকে সরে আসার কথা ভাবছেন। তবে এই জায়গায় একটু ভিন্ন মত প্রকাশ করেছেন রাজ্জাক। তাঁর মত, পাপন কারো নাম উচ্চারণ করে কিছু বলেননি।

“একটা টিমে যেখানে রেসপেক্ট দেওয়া, যেটা আপনি যদি মনে করেন আপনি সিনিয়র ক্রিকেটার, আপনি যদি মনে করেন আপনি এটা, যেটা তামিম করেছে টি-টোয়েন্টিতে, ওর কাছে মনে হচ্ছে। সবাই বলেছে ওকে নেওয়া হচ্ছে না, কিন্তু ও মনে করেছে ওর না খেলা উচিৎ। পাপন ভাই আসলে সেই কথাটাই বলেছে।”

তিনি আরও যোগ করেন, “সবাই মুশফিকের কথা কেন বলছে আমি জানি না। তাঁর নাম তো উচ্চারণ করেননি। শুধু সে নয়, কারো নামই কিন্তু উচ্চারণ করেনি। আমি আসলে জানি না।”

টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার হুমকির মুখে মুশফিকের।

পাকিস্তান সিরিজে টি-টোয়েন্টি সিরিজে মুশফিককে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছে বলে জানান প্রধান নির্বাচক। তবে তাঁর দাবি ছিল বিশ্রাম নয়, বাদই দেওয়া হয়েছে। মিডিয়ায় দুই রকমের বক্তব্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। মুশফিকের দাবি, নির্বাচক প্যানেলের সদস্য হাবিবুল বাশার চাইলে তাঁর সঙ্গে আলোচনা করতে পারতেন।

নির্বাচকদের সঙ্গে তাঁর ভবিষ্যৎ নিয়ে আলোচনায় বসতে রাজি মুশফিক। তবে মুশফিকের টি-টোয়েন্টি ভবিষ্যৎ নিয়ে এখনও তাঁর সঙ্গে বসেনি নির্বাচক প্যানেলের সদস্যরা। এমনটাই বললেন আব্দুর রাজ্জাক। তবে ভবিষ্যতে প্রয়োজন মনে করলে অবশ্যই আলোচনা করবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

“এখনো আসলে এরকম কোনো কিছু হয়নি। হলে অবশ্যই আমরা কথাই বলব। কথা বলতে সমস্যা কিসের। যদি আমার কাছে মনে হয় কোনো একজন ক্রিকেটারকে নিয়ে কথা বলা দরকার, কোনো সমস্যাই নেই। আমি মনে করি না কোনো সমস্যা আছে। যখন আমরা চিন্তা করব, সিদ্ধান্ত নেব নিশ্চিতভাবে আমরা কথা বলব।”

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।