Scores

২০১৮ : আলোচিত দশ ঘটনা

রাত পোহাইলেই নতুন বছর। বিদায়ী বছরে বাইশ গজের লড়াইয়ে এমন অনেক কিছুই ঘটেছে যা ২০১৮ সালকে ক্রিকেট অনুসারীদের মনের কোণে ঠাঁই দিবে। তন্মধ্যে দশটি ঘটনা নিয়েই এ বিশেষ আয়োজন।

বাংলাদেশের সর্পনৃত্য

 

Also Read - বিডিক্রিকটাইমের বর্ষসেরা টেস্ট একাদশ


টাইগারদের সর্পনৃত্য
শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচ জয়ের পর পুরো দল মেতে উঠে নাগিন ড্যান্স উদযাপনে


বাংলাদেশ-ভারত-শ্রীলঙ্কাকে নিয়ে শ্রীলঙ্কায় আয়োজিত হয় টি-২০ টুর্নামেন্ট নিদাহাস ট্রফি। সেখানে শ্রীলঙ্কার ছুঁড়ে দেয়া ২১৫ রানের বিশাল লক্ষ্য টপকে যায় বাংলাদেশ। টান টান উত্তেজনার ঐ ম্যাচে ৩৫ বলে ৭২ রানের ইনিংস খেলে জয় নিশ্চিত করেন মুশফিকুর রহিম। বাংলাদেশের স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপুর সর্পনৃত্যের উদযাপনের ভঙ্গিতে জয় উদযাপন করেন মুশফিক। এরপর তা ছড়িয়ে পড়ে অন্তর্জালে।

ঐ টুর্নামেন্টে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে পরের ম্যাচটিও ছিল শ্বাসরূদ্ধকর। শেষ ওভারে গড়ানো ঐ ম্যাচটি জেতার পর পুরো দল মিলে সর্পনৃত্যের আদলে উদযাপন করলে ক্রিকেট দুনিয়ায় ‘নাগিন সেলেব্রেশন’ হিসেবে তা ব্যাপক পরিচিতি লাভ করে।

সাকিবের মাঠ ছাড়ার হুমকি

এ ঘটনাও নিদাহাস ট্রফির। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিল শেষ ওভারে ১২। ইসুরু উদানা টানা দুইটি কাঁধের উপর বাউন্সার দেন। দ্বিতীয়টি নো বল হওয়ার কথা থাকলেও আম্পায়ার তা দেননি। এরপর নো বল নিয়ে আম্পায়ারের সাথে কথা বলেন অপর ব্যাটসম্যান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। উত্তেজনা ছড়িয়ে পরে ডাগ-আউটেও। ম্যাচ রেফারির সাথে উত্তপ্ত বাক্যবিনিময় হয় অধিনায়ক সাকিবের। এক পর্যায়ে হাত দিয়ে মাঠ ছেড়ে দেওয়ার ইশারা দেন সাকিব। সেই ইশারায় হেলমেটও খুলে ফেলেছিলেন রিয়াদ। এরপর পরিস্থিতি ঠান্ডা হলে ফিরে যান তিনি। এরপর রিয়াদ মাঠ ছাড়েন জয় নিশ্চিত করে।

‘ স্যান্ডপেপার’ কেলেঙ্কারি 

মার্চে কেপ টাউনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্টে বল টেম্পারিংয়ের চেষ্টা করে নিষিদ্ধ হন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ, সহ-অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার এবং ব্যাটসম্যান ক্যামেরন ব্যানক্রফট।

চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজের তৃতীয় টেস্টের তৃতীয় দিন (২৪ মার্চ)  ক্যামেরায় অজি ক্রিকেটার ব্যানক্রফটের বলের আকৃতি পরিবর্তনের চেষ্টা ধরা পড়ে। এরপর শুরু হয় তুমুল সমালোচনা। সংবাদ সম্মেলনে দোষ স্বীকার করে নেন অধিনায়ক স্টিভ স্মিথ। জানান দলের ‘লিডারশিপ গ্রুপ’ এ ব্যাপারে জানত। বাড়তি সুবিধা স্যান্ডপেপার ব্যবহার করে বলের অবস্থার পরিবর্তন করতে চেয়েছিল অস্ট্রেলিয়া।

সফর শেষের আগেই স্মিথ, ওয়ার্নার আর ব্যানক্রফট দেশে ফিরিয়ে তাদের পরিবর্তে ম্যাক্সওয়েল, বার্নস আর রেনশকে পাঠায়। তারপর এ নিয়ে সমালোচনা আরও তীব্র হয়। এমনকি অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীও এ নিয়ে কথা বলেন। দেশে ফিরে সংবাদ সম্মেলনে অশ্রুসিক্ত অনুতাপ প্রকাশ করেন স্টিভ স্মিথ। বিতর্কের জের ধরে পদত্যাগ করেন প্রধান কোচ ড্যারেন লেম্যান। এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ হন স্মিথ-ওয়ার্নার, নয় মাসের জন্য নিষিদ্ধ হন ব্যানক্রফট।

এবি ডি ভিলিয়ার্সের অবসর 

এ বছরের ২৩ মে সবাইকে যেন একটা ধাক্কা দেয় ওয়ানডে ক্রিকেটে দ্রুততম সেঞ্চুরির মালিক এবি ডি ভিলিয়ার্সের অবসরের ঘোষণা। দক্ষিণ আফ্রিকার এ তারকা ক্রিকেটার আচমকাই জানান অবসরের সিদ্ধান্ত। ১১৪ টেস্ট আর ২২৮ আন্তর্জাতিক ওয়ানডে খেলা এ দুর্দান্ত ক্রিকেটারের বিশ্বকাপের আগের বছর অবসরে অবাক করে দেয় সবাইকে।

তামিমের বীরত্ব

তামিম বীরত্বের পেছনের গল্প

১৫ সেপ্টেম্বর এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ। প্রথমে ব্যাটিং করতে নামা বাংলাদেশের ওপেনার তামিম ইকবাল শুরুতেই কব্জিতে চোট পেয়ে মাঠ ছাড়তে হয় তাকে। কব্জিতে চিড় নিয়ে মাঠে ফিরেন তিনি। ব্যাটিংয়ে নামার অবস্থায় না থাকলেও দলের প্রয়োজনে নয় উইকেট পতনের পর মুশফিকুর রহিমকে সঙ্গ দিতে নেমে পড়েন তিনি। গ্লাভস পরার অবস্থাও ছিল না তার। তাই গ্লাভস কেটে দেন অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা।  সেই কাটা গ্লাভস নিয়ে মুশফিককে সঙ্গ দেন। এমনকি এক হাতে একটি বলো খেলেন। তামিম-মুশফিক জুটি থেকে রান এসেছিল ৩২। তামিম ইকবালের সাহসিকতা আর বীরত্বের বন্দনা ছিল পুরো ক্রিকেটবিশ্বে।


আজহার আলির হাস্যকর রান আউট

 

আজহার আলির হাস্যকর রান আউটের দৃশ্য


অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়া-পাকিস্তান টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় টেস্টের তৃতীয় দিনে পাকিস্তানের দ্বিতীয় ইনিংসের ৫৩ তম ওভারের ঘটনা। ব্যাটের কোণায় লেগে বল চলে যায় বাউন্ডারির কাছাকাছি। আজহার আলি ভেবেছিলেন সেটি চার হয়ে যাবে। ক্রিজের মাঝে এসে অপর প্রান্তের ব্যাটসম্যান আসাদ শফিকের সাথে কথা বলায় ব্যস্ত ছিলেন আজহার।  কিন্তু বল থেমে যায় বাউন্ডারির কাছাকাছি।  অস্ট্রেলিয়ার ফিল্ডার মিশেল স্টার্ক বল তুলে উইকেটরক্ষক টিম পেইনের কাছে  নিক্ষেপ করেন। বল তালুবন্দী করে স্টাম্প ভেঙে আজহারকে রান আউট করেন দেন টিম পেইন। এ হাস্যকর রান আউট নিয়ে কম আলোচনা হয়নি।

ধোনির বাদ পড়া

উইন্ডিজ ও অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-২০ সিরিজের স্কোয়াডে ছিলেন না  ভারতের মহেন্দ্র সিং ধোনি। ধোনির এ বাদ পড়া নিয়ে ভারতের ক্রিকেটাঙ্গন থেকে শুরু করে সব দেশেই হয়েছিল নানান আলোচনা। তবে ভারতের নির্বাচকরা জানিয়েছিনেল উইকেটের পেছনে ধোনির বিকল্পদের গড়ে তোলার জন্যই এ সিদ্ধান্ত।

আম্পায়ারিং বিতর্ক

বাংলাদেশ-উইন্ডিজ টি-২০ সিরিজের তৃতীয় টি-২০ ম্যাচের ঘটনা। ১৯১ রান তাড়া করতে নামা বাংলাদেশের রান ছিল ৩ ওভার ৪ বলে ১ উইকেটে রান ছিল ৪২। ওশান থমাসের করা সেই ওভারের একটি বলে নো বল ডাকেন আম্পায়ার তানভীর আহমেদ। পরে রিপ্লেতে দেখা যায় সেটি নো ছিল না। এরপর ওভারের শেষ বলেও নো বল ডাকলেও সেটিও রিপ্লেতে দেখা যায় সঠিক ডেলিভারি ছিল। এমন ভুলভাল আম্পায়ারিংয়ে ক্ষিপ্ত হয়ে যান উইন্ডিজ অধিনায়ক কার্লোস ব্র্যাথওয়েট। রিভিউ চাইলেও নো বলের জন্য রিভিউয়ের নিয়ম ছিল না।

ঘটনা গড়ায় ম্যাচ রেফারি পর্যন্ত। বাউন্ডারির লাইনের বাইরে গিয়ে ব্র্যাথওয়েট কথা বলেন ম্যাচ রেফারির সাথে। অবশ্য সিদ্ধান্ত আর বদলায়নি। সেটি নো বলই রাখা হয়। মাঝে ম্যাচ বন্ধ ছিল প্রায় নয় মিনিট।

আর্চির ইচ্ছে পূরণ

 

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে টস করলো ফুটফুটে আর্চি শিলার
টস সেশনে আর্চি শিলার

 

৭ বছর বয়সী অস্ট্রেলিয়ার আর্চি শিলার হৃদরোগে আক্রান্ত। তার ইচ্ছা ছিল ক্রিকেটার হওয়ার। ছোট্ট আর্চির সেই ইচ্ছে পূরণ করতে এগিয়ে আসে  ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। ভারতের বিপক্ষে বক্সিং ডে টেস্টে দলে নেওয়া হয় তাকে। অস্ট্রেলিয়ার জার্সি পড়ে পেইনদের সাথে অনুশীলনে দেখা গিয়েছে তাকে। বক্সিং ডে টেস্টে তাকে করা হয় যুগ্ম অধিনায়ক। এমনকি টসের সময়েও উপস্থিত ছিলেন আর্চি। ক্রিকেট দুনিয়ায় আলোড়ন সৃষ্টি করে এ ঘটনা।

বোল্টের তোপ

বক্সিং ডে টেস্টে আগুন ঝড়ানো বোলিং করেছেন নিউজিল্যান্ডের পেসার ট্রেন্ট বোল্ট। প্রথম দিন ৪ উইকেটে ৯৪ রান নিয়ে শেষ করেছিল শ্রীলঙ্কা। দ্বিতীয় দিন তারা অলআউট হয়ে যায় ১০৪ রান করে। মাত্র ১৫ বল করে ৬ উইকেট তুলে নেন বোল্ট। তার অসাধারণ বোলিং স্পেল নিয়েও কম আলোচনা হয়নি।

নিউজটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Related Articles

অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবতে চান মরগান

দুই কূলই হারিয়েছেন হেসন!

লারা-সারওয়ানের দ্বারস্থ ক্যারিবীয় ক্রিকেটাররা

কোচ নিয়োগের আগে মিসবাহই সামলাবেন পাকিস্তানকে

বৃষ্টি-বাঁধার লর্ডসে স্বস্তিতে নেই অস্ট্রেলিয়াও